029.016

স্মরণ কর ইব্রাহীমকে। যখন তিনি তাঁর সম্প্রদায়কে বললেন; তোমরা আল্লাহর এবাদত কর এবং তাঁকে ভয় কর। এটাই তোমাদের জন্যে উত্তম যদি তোমরা বোঝ।
And (remember) Ibrâhim (Abraham) when he said to his people: ”Worship Allâh (Alone), and fear Him, that is better for you if you did but know.

وَإِبْرَاهِيمَ إِذْ قَالَ لِقَوْمِهِ اعْبُدُوا اللَّهَ وَاتَّقُوهُ ذَلِكُمْ خَيْرٌ لَّكُمْ إِن كُنتُمْ تَعْلَمُونَ
Wa-ibraheema ith qala liqawmihi oAAbudoo Allaha waittaqoohu thalikum khayrun lakum in kuntum taAAlamoona

YUSUFALI: And (We also saved) Abraham: behold, he said to his people, “Serve Allah and fear Him: that will be best for you- If ye understand!
PICKTHAL: And Abraham! (Remember) when he said unto his folk: Serve Allah, and keep your duty unto Him; that is better for you if ye did but know.
SHAKIR: And (We sent) Ibrahim, when he said to his people: Serve Allah and be careful of (your duty to) Him; this is best for you, if you did but know:
KHALIFA: Abraham said to his people, “You shall worship GOD, and reverence Him. This is better for you, if you only knew.

১৫। কিন্তু আমি তাঁকে এবং নৌকায় যারা ছিলো , তাদের উদ্ধার করেছিলাম। এবং আমি বিশ্ববাসীর জন্য ইহাকে [নৌকাকে ] একটি নিদর্শন করেছিলাম।

১৬। এবং [ আমি রক্ষা করেছিলাম ] ইব্রাহীমকে। স্মরণ কর সে তাঁর সম্প্রদায়কে বলেছিলো , ” আল্লাহ্‌র এবাদত কর এবং তাঁকে ভয় কর। যদি তোমরা বুঝতে পার , তবে তাই-ই হবে সর্বোৎকৃষ্ট ৩৪৩৮।

৩৪৩৮। হযরত ইব্রাহীমের কাহিনী বিভিন্ন সূরাতে বর্ণনা করা হয়েছে। বর্তমান অংশের বর্ণনার সাথে প্রাসঙ্গিক যে সব সূরার অংশ সেগুলি হচ্ছে [ ২১ : ৫১- ৭২ ] ; যেখানে তাঁর আগুনে নিক্ষেপের এবং আগুন থেকে রক্ষা পাওয়ার ঘটনার বর্ণনা আছে। এবং সূরা [ ১৯ : ৪১ – ৪৯ ] আয়াত যেখানে বলা হয়েছে যে, তিনি পিতৃগৃহ থেকে স্বেচ্ছা নির্বাসনে মাতৃভূমি ত্যাগ করেন। এই সূরাতে পূর্ববর্তী সূরার কাহিনীর পুণরাবৃত্তি করা হয় নাই, কিন্তু উল্লেখ করা হয়েছে নিম্নলিখিত বিষয়গুলির উপরে গুরুত্ব আরোপ করার জন্য :

১) ইব্রাহীমের সম্প্রদায় হেদায়েতের পরিবর্তে ইব্রাহীমকে পুড়িয়ে মারার জন্য ভীতি প্রদর্শন করে [ ২৯ : ১৬-১৮; ২৪ ]। ]

২) মন্দরা পরস্পর পরস্পরের সহগামী , কিন্তু পরলোকে তাদের নির্মম সত্যের মুখোমুখি হতে হবে [ ২৯ : ২৫ ]।

৩) ভালো সর্বদা ভালোর সহচার্য কামনা করে এবং আল্লাহ্‌র আশীর্বাদে ধন্য হয় [২৯ : ২৬ – ২৭ ]। লক্ষ্য করুন [ ২৯ : ১৯ – ২৩ ] আয়াতগুলি হযরত ইব্রাহীমের কাহিনী বর্ণনার মাঝে মন্তব্য স্বরূপ , যদি কোনও কোনও তফসীরকার মনে করে যে, এগুলি হযরত ইব্রাহীমের নিজস্ব বক্তব্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *