অভিযুক্ত আমি

আমার নিজের কাছে কী নগ্ন জবাবদিহি করি প্রায়শই, যেন আমি কনফেশনপ্রবণ খুব এবং নিজেই ধর্মযাজক, যেজন অন্তরালে পাপী-তাপী সকলের গোপন… Read more অভিযুক্ত আমি

একজন কবি শুধু

মগজে পাখির ঘ্রাণ, টানেলের অন্তর্গত রূপ, বংশীধ্বনি, হৃদয়ে অনেক প্রতিধ্বনিময় স্তর নিয়ে ঘুমায় বলেই হয়তো-বা স্বপ্নে তার জ্বলজ্বলে কালো নীল… Read more একজন কবি শুধু

কবির ঘর

(বেগম সুফিয়া কামালকে নিবেদিত) বিনীত শোভিত ঘর, সামান্যই আসবাবপত্র, কতিপয় ফটোগ্রাফ দেয়ালে, টেবিলে, দেয়ালে সর্বদা জয়নুল আবেদিনের দুর্ভিক্ষ। ঘরময় আনাগোনা,… Read more কবির ঘর

কাঙাল

একজন হতচ্ছাড়া লোককে আমি প্রত্যহ দেখি, সারাক্ষণ সে দাঁড়িয়ে থাকে আমার দরজার সামনে, তার মুখে টুঁ শব্দটি নেই। এক মাথা… Read more কাঙাল

কিছুক্ষণ

দূরে বা কাছেই  মৃত্যু তো আছেই ওত পেতে, ঝাঁপিয়ে পড়ার আগে তোমার চোখের পাতার কম্পন কিছুক্ষণ দেখে নিই এ শোকের… Read more কিছুক্ষণ

চাঁদ

ভেবেছিলাম সে, চাঁদ, অভিমানী কৃষকের মতো আর ফিরে আসবে না আকাশের মাঠে, যে-দেশে একদা অবিরত বয়ে গেছে রক্তস্রোত, হয়েছে নারীর… Read more চাঁদ

ট্যান্টালাস

এখন তো পুশিদা সে জলশায় অত্যন্ত নিকটে উচ্ছ্বসিত, রৌদ্রঝলসিত, জ্যোৎস্নাচমকিত; দেখি আমার নিজের মুখ টলটলে জলে, ঝলমলে ফলের গাছের ডাল… Read more ট্যান্টালাস

দীর্ঘশ্বাস

শরীরের কত ধুলো লাগলে, কত কাঁটা বিঁধলে পায়ে একটি দীর্ঘশ্বাস জন্ম হয়? একটি দীর্ঘশ্বাস খুব বেশি দীর্ঘ নয়, নিমেষেই শেষ… Read more দীর্ঘশ্বাস

নাছোড় অতিথি

বেশ কিছুদিন থেকে প্রত্যহ দেখছি পষ্ট তাকে। আমার শোবার ঘরে শায়িত সে, স্পন্দনরহিত, পতিত জমির মতো, যেখানে কখনো ফসলের স্বর্ণশীষ… Read more নাছোড় অতিথি

বিচ্ছেদ

কোনো কোনো দিন গভীর রাত্তিরে ঘুম ভেঙে গেলে, প্রায়শই ভাঙে আজকাল, নিজেকে ভীষণ একা লাগে। যেন আমি প্রাচীন ধ্বংসস্তূপে অত্যন্ত… Read more বিচ্ছেদ

ভোট দেব

তোমার ভোটাধিকার আছে বলে ক’জন নিঝুম প্রজাপতি ক্যানভাসারের মতো উড়ে যায় গহন দুপুরে আমার চুলের গুচ্ছ ছুঁয়ে, কান ছুঁয়ে। ব্যালটবাক্সের… Read more ভোট দেব

মধ্যরাতে

পুরোনো দেয়াল ঘড়ি আওড়ায় গাঢ় মধ্যরাত, মধ্যরাত শিরাপুঞ্জে বোনে সুর, যেনবা সরোদ ঝংকৃত গুণীর হাতে। তন্দ্রার চুম্বন চোখে, হাত থেকে… Read more মধ্যরাতে

মর্সিয়া

নিমেষেই প্রকৃতি ও মানুষের চোখ মুখ সুনসান, সিয়া, চোখের, গাছের পাতা লতাগুল্ম কী ব্যাপক গাইছে মর্সিয়া!

মানুষ এসেই যায়

বহুদিন ধরে যাচ্ছি,কখনো আনন্দে, কখনোবা কায়ক্লেশে অত্যন্ত কাতর পথ হাঁটি। মাঝে-মধ্যে পান্থনিবাসের প্রেতায়িত নিরালায় থাকি মধ্যরাতে; মধ্যরাতে মগজের  ভেতরে বেড়াল… Read more মানুষ এসেই যায়

মূকাভিনয়

আমরা মূকাভিনয় করি অনেকেই সারাক্ষণ, আমাদের এ রকম করে যেতে হয় বহুকাল। এত যে মূকাভিনেতা চুতষ্পার্শে আনাগোনা করে নিত্য সারি… Read more মূকাভিনয়

যতবার আমি

যতবার আমি আকাশ শব্দটা উচ্চারণ করতে চাই, কিংবা বৃক্ষ বলে ডাক দিই, ততবার তোমারই নাম বলে ফেলি। জানালার বাইরে তাকিয়ে… Read more যতবার আমি

হিসেবনবিশ

হিসেবী সে নয় তবু নিয়ত হিসেব করে কাটে তার বেলা। নিজের বিবর্ণ ঘরে কী কী আসবাব আছে, ক’টি ফটোগ্রাফ, মানচিত্র… Read more হিসেবনবিশ

হ্যাঁ

হ্যাঁ আমি হ্যাঁ তুমি হ্যাঁ তোমরা হ্যাঁ আমরা হ্যাঁ আমাদের কিছু একটা করার থাকে কখনো না কখনো হ্যাঁ এমন কিছু… Read more হ্যাঁ