অপাঙ্‌ক্তেয়

যেহেতু লৌকিকতার দড়িদড়া ছিঁড়ে বেপরোয়া উঁচিয়ে মাস্তুল সুন্দরের ভাস্বর সে নীলিমায় ভ্রমণবিলাসী তাই সম্মিলিত মুখর প্রস্তাবে দিয়েছ উন্মাদ আখ্যা, উপরন্তু… Read more অপাঙ্‌ক্তেয়

একান্ত গোলাপ

আমার হৃদয়ে নেই লোকাতীত একান্ত গোলাপ সৌরভের উন্মোচনে যার রূপসী মহিলা তুমি, তুমি হবে প্রমোদের রাণী নেপথ্যে বসন্ত দিনে। বরং… Read more একান্ত গোলাপ

ওই মৌন আকাশের

ওই মৌন আকাশের শবাধারে মৃতা সুন্দরীর নিদ্রিত মুখের মত পাণ্ডু চাঁদ! কয়টি জোচ্চোর নৈশ আস্তানায় জোটে, যেন খিন্ন মাছি ঊর্ণাজালে।… Read more ওই মৌন আকাশের

কথার জন্যে

তা চলে কী করি? একটি কথার জন্যে ভেবে মরি সারাক্ষণ, অথচ কথার অন্ত নেই বিশাল ত্রিলোকে, প্রাণবন্ত শত কথা -ব্যথার… Read more কথার জন্যে

কাব্যতত্ত্ব

গনগনে চুল্লির আলোর খইয়ের মতো কথা ফোটে অন্তর্লোকে, রাশি রাশি। আর আমি তাদের ছড়িয়ে দিই ঢেউয়ের ফেনায়, সপ্তর্ষিমণ্ডলে, পাহাড়ের চূড়ায়,… Read more কাব্যতত্ত্ব

ক্ষত এবং ধনুক

বহুদূরে লোকালয় উন্মীলিত মাধবীর মতো। অস্পষ্ট আঘ্রাণ তার স্মৃতিকে জোগারে আমরণ নিভৃতে উচ্ছিষ্ট মধু আর আমি দ্বৈপায়ন, রণ- ছুট আজ,… Read more ক্ষত এবং ধনুক

খাদ

সেখানে গভীর খাদ আছে এক কুটিল, ভয়াল অতিকায় সিংহের হাঁয়ের মতো অদ্ভুত শূন্যতা চতুর্দিকে ব্যাপ্ত তার, আদিগন্ত বিভ্রমে বিহ্বল। অতল… Read more খাদ

ছিল সে-ও

ছিল সে-ও ধুলোর নিঃসঙ্গ পথে, ছিল কোলাহলে সমর্পিত চিরদিন। দিঘি তাকে চেয়েছিল বলে সোনার শরীর নিয়ে ব্যর্থ হল নারী। ডুবিয়ে… Read more ছিল সে-ও

তোমাকেই বলি

ছায়া-করে-আসা দূরের পথের সাঁকো পেরোবার ধীর-মুহূর্তে পাশাপাশি শুধু হেঁটেছি দু’জন; স্তব্ধ ছিলাম সারাবেলা তবু দ্বিরুক্তি তুমি করনি কিছুই। মনের কথাটি… Read more তোমাকেই বলি

পিতা

প্রাণে গেঁথে সূর্যমুখী-উন্মখতা খুঁজি আজও তাঁকে সর্বত্র অক্লান্ত শ্রমে। স্বপ্নের মৃণালে মুখ তাঁর জ্যোতির্ময় কল্যাণের মতো ফুটে অভ্র-শুভ্রতার অতল সমুদ্রে… Read more পিতা

পূর্বরাগ

জেনেছি কাকে চাই, কে এলে চোখে ফোটে নিমেষে শরতের খুশির জ্যোতিকণা; কাঁপি না ভয়ে আর দ্বিধার নেই দোলা- এবার তবে… Read more পূর্বরাগ

বিরস গান

ইচ্ছা আর অনিচ্ছায় জীবনভোর কলম ঠেলে হায়রে তুমি কী-ইবা পেলে? দিনরাত্রি পুঁথির শত পাহাড় খুঁড়ে দেখলে শেষে পোড়া কপাল! মূষিক… Read more বিরস গান

ব্যবধান

আজও কি সেখানে যাও, যেখানে মায়াবী একদার স্বর্ণমৃণ দেখা না-দেখায় মেশা? হয় কি সময়? হয়তো সেখানে আজ নন্দিত, প্রোজ্বল ফুল… Read more ব্যবধান

মনে মনে

জানি না কী করে কার মমতার মতো শান্ত-শুভ্র ভোর এসে ঝরে জানি না কী করে এত নীল হয় রোজ ধ্রুপদী… Read more মনে মনে

মৃন্ময়

অনেক কিছুই জানা নেই আপন এ পৃথিবীর। বিতরিত হতে পারে হাটে-মাঠে-এমন নিবিড় আলো নেই আমার তামস করতলে, অথচ নিত্যই দেখি… Read more মৃন্ময়

যুদ্ধ

বারোমাস তুমি ক্ষ’য়ে গ’লে ঝরে যা-কিছু পেয়েছ বর্ষার মেঘে বাতাসের স্বরে দিগন্ত-কাঁপা রোদের সাড়ায় শত বছরের কবির চোখের, প্রাণের তারায়… Read more যুদ্ধ

রুপালি স্নান

শুধু দু’টুকরো শুকনো রুটির নিরিবিলি ভোজ অথবা প্রখর ধু-ধু পিপাসার আঁজলা-ভরানো পানীয়ের খোঁজ শান্ত সোনালি আল্পনাময় অপরাহ্নের কাছে এসে রোজ… Read more রুপালি স্নান

শিখা

জানলাম পোড়ায় সে নগর ও গ্রাম, শক্রর শিবির আর মিত্রের পাড়ায় সমান প্রতাপ তার। অলক্ষ্যে কখন কী হারায় পৃথিবী, কে… Read more শিখা

সুন্দরের গাথা

যেখানে সূর্যের তলে আকাঙ্ক্ষিত সুন্দরের গাথা নিসর্গে মধুর মতো, ফুলের পাপড়ির মতো ঝরে অথবা যেখানে গাঢ় চন্দ্রবোড়া সঙ্গিনীর শাখায় আকুল,… Read more সুন্দরের গাথা

সে

প্রেম তাকে করে না আকুল। উদয়াস্ত তার প্রাণে একটি মরুর জ্বালা উন্মোচিত-যেন সে দুর্জ্ঞেয় কোনো যন্ত্রণার গানে ধুলোর বিজনে যাত্রী… Read more সে

সেই ঘোড়াটা

আস্তাবলে ফিকে অন্ধকার, ঝুলছে নিষ্কম্প স্তব্ধতা, আর সেই বেতো ঘোড়াটা অনেকক্ষণ থেকে ঝিমোচ্ছে নিঃশব্দে কোনো আফিমখোরের মতো, মাঝে-মাঝে শুধু ফোলা-পা… Read more সেই ঘোড়াটা