???

বিকেলের জাফরানি রোদে কলকাতা ক্ষণকালরূপচার্চা করে নেয় আনমনে আরপথে যেতে যেতে খুব কাছ থেকে দেখিবাগবাজারের চৌরাস্তায় গিরীশ ঘোষের বাড়িউদাস দাঁড়িয়ে… Read more ???

অচিন মানুষ

ঘুমের ভেতর প্রায় রোজই এসে দাঁড়ায় কে এক অচিন মানুষ; চেয়ে থাকে প্রগাঢ় আমার দিকে কিছুক্ষণ, জাফরানি-রঙ আলখাল্লা তার হাওয়ায়… Read more অচিন মানুষ

অভিন্ন মানুষ

অনেক অনেকক্ষণ ধরে সুদূরে চলেছি হেঁটে; অকস্মাৎ মনে হ’ল, যেখানে ছিলাম সেখানেই রয়ে গেছি। চারপাশে বেবাক একই তো আছে-সেই ঘরবাড়ি,… Read more অভিন্ন মানুষ

অরূপ রতন

যখন নেপথ্যে ডুব দিয়ে অতলে কাটাতে চাই নিজস্ব সময় কিছু, জাল ফেলে, আমার চুলের মুঠি ধরে ওরা টেনে তুলে আনে… Read more অরূপ রতন

আজীবন অক্লান্ত সাধনা ছিল তাঁর

আততায়ী অন্ধকার অতর্কিতে বর্বর, দাঁতাল হিংস্রতায় গ্রাস করে পূর্ণিমাকে। মহিমার বিনাশে কাদার কৃমিকীট, সরীসৃপ, পিশাচেরা উল্লসিত হয়। ইতিহাস যাঁকে খোলা… Read more আজীবন অক্লান্ত সাধনা ছিল তাঁর

আনন্দ

আমার বাসার সামনের অনাথ শিশুনিকেতনের দেয়ালে সেঁটে-থাকা ঝলমলে রোদ দেখে আজ কী যে ভালো লাগে আমার। আনন্দ আমাকে জড়িয়ে ধরে… Read more আনন্দ

একজন কবি

আহ্‌ এত আতশবাজি, মালার বাহার, আলোর প্লাবন চারদিকে। কেমন একটা মন-মাতানো সুরের ঘূর্ণিনাচ সবুজ লন, ফুলের গাছ, গাড়ি বারান্দা, আর… Read more একজন কবি

একদা এখানে

একদা এখানে এই বাড়িতে করত বসবাস পরম শান্তিতে কতিপয় নিরিবিলি বাশিন্দা, ছিল না কোনও চেঁচামেচি বাড়িটিতে, কিংবা কোনও দিন অকস্মাৎ… Read more একদা এখানে

ওরে নির্বোধ

ওরে নির্বোধ, ওরে হঠকারী পদ্য-লিখিয়ে কেন তুই শেষে এমন পদ্য লেখার নেশায় মেতেছিলি এই সূর্য ডোবার একটুকু আগে? বেশ তো… Read more ওরে নির্বোধ

কবি

নিশীথ আমাকে তার থমথমে অন্ধকারে একটি গাছের নিচে দাঁড় করিয়ে নিগূঢ় কিছু কথা মৃদু বলে নেয়, অবয়বহীন তাকে ছুঁতে গিয়ে… Read more কবি

কবির মিনতি

থাকেন আপন মনে নিঝুম স্টাডিতে নিমগ্ন পুস্তকপাঠে, কখনওবা কবিতা লেখায়। কয়েকটি কবুতর রোজ তার আতিথেয়তায় তৃপ্ত ওড়ে কাছের আকাশে প্রফুল্ল… Read more কবির মিনতি