ওমা উমা, এ আনন্দ কোথা রাখি বল্

ওমা উমা, এ আনন্দ কোথা রাখি বল্
নগরে উঠেছে কি আনন্দ কোলাহল।
সবাই বলে ও রানী মা! নাইক উমার গুনের সীমা,
পায়ের ধুলো দিয়ে, হেসে, নাশে অমঙ্গল।
ও নয়, মা, সামান্য মেয়ে, তুই ধন্য হলি ওরে পেয়ে,
যে-ঘরে যায়, ধনে জনে সেই ঘরই উজল।
লক্ষ লক্ষ মূর্তি ধরে অর্বিভূতা লক্ষ ঘরে,
শক্তিরূপা ব্রক্ষ্মময়ী বলছে ভক্তদল!
জন্ম অন্ধ ছিল কজন মা মা বলে কল্লে ভজন,
উমা হাত বুলিয়ে নয়ন দিল-দেখবি যদি চল।
ওমা গৌরি! একি কান্ড পাগল কল্লি এ ব্রক্ষ্মন্ড
আমার শুধু চক্ষে ঠুলি, এমনি কর্মফল!
না, না, উমা, দিসনে নয়ন, ভাঙিসনে মা, সুখের স্বপন,
তুই আদ্যাশক্তি, ভাবতে আমার চক্ষে আসে জল।
স্বপ্ন যদি হয়, মা তারা, করিসনে মা, স্বপ্নহারা।
আমি কন্যাহারা হতে নারি আমার এক মেয়ে সম্বল।।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *