বুখারি হাদিস নং ১৩৬৯ – যার উপর বিনতে মাখায যাকাত দেওয়া ওয়াজিব হয়েছে অথচ তার কাছে তা নেই।

হাদীস নং ১৩৬৯ মুহাম্মদ ইবনে আবদুল্লাহ রহ……….আনাস রা. থেকে বর্ণিত যে, আবু বকর রা. তাঁর কাছে আল্লাহ তাঁর রাসূল সাল্লাল্লাহু… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৬৯ – যার উপর বিনতে মাখায যাকাত দেওয়া ওয়াজিব হয়েছে অথচ তার কাছে তা নেই।

বুখারি হাদিস নং ১৩১৩ – যাকাত ওয়াজিব হওয়া।

হাদীস নং ১৩১৩ আবু আসিম যাহহাক ইবনে মাখলাদ রহ…….ইবনে আব্বাস রা. থেকে বর্ণিত যে, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম মুআয… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩১৩ – যাকাত ওয়াজিব হওয়া।

বুখারি হাদিস নং ১৩১৬

হাদীস নং ১৩১৬ মুসাদ্দাদ রহ……….আবু যুরআ রহ.-এর মাধ্যমে নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম থেকে অনুরূপ বর্ণনা করেন।

বুখারি হাদিস নং ১৩২০ – যাকাত প্রদানে অস্বীকৃতি জ্ঞাপনকারীর গুনাহ।

হাদীস নং ১৩২০ আবুল ইয়ামান হাকাম ইবনে নাফি রহ………আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩২০ – যাকাত প্রদানে অস্বীকৃতি জ্ঞাপনকারীর গুনাহ।

বুখারি হাদিস নং ১৩২২ – যে সম্পদের যাকাত আদায় করা হয় তা কানয (জমাকৃত সম্পদ)-এর অন্তর্ভূক্ত নয়, পাঁচ উকিয়া-এর কম পরিমাণ সম্পদের উপর যাকাত নেই।

হাদীস নং ১৩২২ আহমদ ইবনে শাবীব ইবনে সাঈদ রহ……..খালিদ ইবনে আসলাম রহ. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমরা আবদুল্লাহ ইবনে উমর… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩২২ – যে সম্পদের যাকাত আদায় করা হয় তা কানয (জমাকৃত সম্পদ)-এর অন্তর্ভূক্ত নয়, পাঁচ উকিয়া-এর কম পরিমাণ সম্পদের উপর যাকাত নেই।

বুখারি হাদিস নং ১৩২৬ – সম্পদ যথাস্থানে ব্যয় করা।

হাদীস নং ১৩২৬ মুহাম্মদ ইবনে মুসান্ন রহ………ইবনে মাসউদ রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-কে বলতে… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩২৬ – সম্পদ যথাস্থানে ব্যয় করা।

বুখারি হাদিস নং ১৩২৭ – হালাল উপার্জন থেকে সাদকা করা।

হাদীস নং ১৩২৭ আবদুল্লাহ ইবনে মুনীর রহ………আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন :… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩২৭ – হালাল উপার্জন থেকে সাদকা করা।

বুখারি হাদিস নং ১৩২৮ – ফেরত দেওয়ার পূর্বেই সাদকা করা।

হাদীস নং ১৩২৮ আদম রহ……..হারিসা ইবনে ওহব রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-কে বলতে শুনেছি, তোমরা… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩২৮ – ফেরত দেওয়ার পূর্বেই সাদকা করা।

বুখারি হাদিস নং ১৩৩২ – জাহান্নাম থেকে আত্মরক্ষা কর, এক টুকরা খেজুর অথবা সামান্য কিছু সাদকা করে হলেও।

হাদীস নং ১৩৩২ আবু কুদামা উবায়দুল্লাহ ইবনে সাঈদ রহ………আবু মাসউদ রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, যখন সাদকার আয়াত অবতীর্ণ হল… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৩২ – জাহান্নাম থেকে আত্মরক্ষা কর, এক টুকরা খেজুর অথবা সামান্য কিছু সাদকা করে হলেও।

বুখারি হাদিস নং ১৩৩৬ – সুস্থ কৃপণের সাদকা দেওয়ার ফজিলত।

হাদীস নং ১৩৩৬ মূসা ইবনে ইসমাঈল রহ………আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, এক সাহাবী নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-এর… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৩৬ – সুস্থ কৃপণের সাদকা দেওয়ার ফজিলত।

বুখারি হাদিস নং ১৩৩৭ – পরিচ্ছেদ ৮৯৩

হাদীস নং ১৩৩৭ মূসা ইবনে ইসমাঈল রহ………আয়িশা রা. থেকে বর্ণিত, কোন নবী-সহধর্মিণী নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-কে বললেন, আমাদের মধ্য… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৩৭ – পরিচ্ছেদ ৮৯৩

বুখারি হাদিস নং ১৩৩৮ – সাদকাদাতা অজান্তে (ফকীর মনে করে) কোন ধনী ব্যক্তিকে সাদকা দিলে।

হাদীস নং ১৩৩৮ আবুল ইয়ামান রহ………আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত যে, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন : (পূর্ববর্তী উম্মতের… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৩৮ – সাদকাদাতা অজান্তে (ফকীর মনে করে) কোন ধনী ব্যক্তিকে সাদকা দিলে।

বুখারি হাদিস নং ১৩৩৯ – অজান্তে কেউ তার পুত্রকে সাদকা দিলে।

হাদীস নং ১৩৩৯ মুহাম্মদ ইবনে ইউসুফ রহ……..মা’ন ইবনে ইয়াযীদ রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি আমার পিতা (ইয়াযীদ) ও আমার… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৩৯ – অজান্তে কেউ তার পুত্রকে সাদকা দিলে।

বুখারি হাদিস নং ১৩৪০ – সাদকা ডান হাতে প্রদান করা।

হাদীস নং ১৩৪০ মুসাদ্দাদ রহ……….আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত যে, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন : যে দিন আল্লাহর… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৪০ – সাদকা ডান হাতে প্রদান করা।

বুখারি হাদিস নং ১৩৪২ – যে ব্যক্তি নিজ হাতে সাদকা না দিয়ে খাদেমকে তা দিয়ে দেওয়ার আদেশ করে।

হাদীস নং ১৩৪২ উসমান ইবনে আবু শায়বা রহ……….আয়িশা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন :… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৪২ – যে ব্যক্তি নিজ হাতে সাদকা না দিয়ে খাদেমকে তা দিয়ে দেওয়ার আদেশ করে।

বুখারি হাদিস নং ১৩৪৩ – প্রয়োজনের অতিরিক্ত সম্পদ থাকা ব্যতীত সাদকা না করা।

হাদীস নং ১৩৪৩ আবদান রহ………আবু হুরায়রা রা. সূত্রে নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন : প্রয়োজনের অতিরিক্ত… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৪৩ – প্রয়োজনের অতিরিক্ত সম্পদ থাকা ব্যতীত সাদকা না করা।

বুখারি হাদিস নং ১৩৪৬ – যে ব্যক্তি যথাশীঘ্র সাদকা দেওয়া পছন্দ করে।

হাদীস নং ১৩৪৬ আবু আসিম রহ………উকবা ইবনে হারিস রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, একদিন নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম আসরের… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৪৬ – যে ব্যক্তি যথাশীঘ্র সাদকা দেওয়া পছন্দ করে।

বুখারি হাদিস নং ১৩৪৭ – সাদকা দেওয়ার জন্য উৎসাহ প্রদান ও সুপারিশ করা।

হাদীস নং ১৩৪৭ মুসলিম রহ………ইবনে আব্বাস রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ঈদের দিন বের হলেন… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৪৭ – সাদকা দেওয়ার জন্য উৎসাহ প্রদান ও সুপারিশ করা।

বুখারি হাদিস নং ১৩৫১ – সাধ্যানুসারে সাদকা করা।

হাদীস নং ১৩৫১ আবু আসিম রহ. ও মুহাম্মদ ইবনে আবদুর রাহীম রহ………আসমা বিনতে আবু বকর রা. থেকে বর্ণিত, তিনি এক… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৫১ – সাধ্যানুসারে সাদকা করা।

বুখারি হাদিস নং ১৩৫২ – সাদকা গুনাহ মিটিয়ে দেয়।

হাদীস নং ১৩৫২ কুতাইবা রহ……….হুযায়ফা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, একবার উমর ইবনে খাত্তাব রা. বললেন, তোমাদের মধ্যে কে নবী… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৫২ – সাদকা গুনাহ মিটিয়ে দেয়।

বুখারি হাদিস নং ১৩৫৩ – মুশরিক থাকাকালে সাদকা করার পর যে ইসলাম গ্রহণ করে (তার সাদকা কবুল হবে কি না )।

হাদীস নং ১৩৫৩ আবদুল্লাহ ইবনে মুহাম্মদ রহ……….হাকীম ইবনে হিযাম রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি আরয করলাম, ইয়া রাসূলাল্লাহ !… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৫৩ – মুশরিক থাকাকালে সাদকা করার পর যে ইসলাম গ্রহণ করে (তার সাদকা কবুল হবে কি না )।

বুখারি হাদিস নং ১৩৫৪ – মালিকের আদেশে ফাসাদের উদ্দেশ্য ব্যতীত খাদিমের সাদকা করার সওয়াব।

হাদীস নং ১৩৫৪ কুতাইবা ইবনে সাঈদ রহ……..আয়িশা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন : স্ত্রী… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৫৪ – মালিকের আদেশে ফাসাদের উদ্দেশ্য ব্যতীত খাদিমের সাদকা করার সওয়াব।

বুখারি হাদিস নং ১৩৫৬ – ফাসাদের উদ্দেশ্য ব্যতীত স্ত্রী তার স্বামীর ঘর থেকে কিছু সাদকা করলে বা কাউকে আহার করালে স্ত্রী এর সওয়াব পাবে।

হাদীস নং ১৩৫৬ আদম ও উমর ইবনে হাফস রহ……….আয়িশা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৫৬ – ফাসাদের উদ্দেশ্য ব্যতীত স্ত্রী তার স্বামীর ঘর থেকে কিছু সাদকা করলে বা কাউকে আহার করালে স্ত্রী এর সওয়াব পাবে।

বুখারি হাদিস নং ১৩৫৮ – মহান আল্লাহর বাণী : যে ব্যক্তি দান করে এবং তাকওয়া অবলম্বন করে এবং যা উত্তম তা গ্রহণ করে আমি তার জন্য সহজ পথ সুগম করে দেব। আর যে ব্যক্তি কার্পণ্য করে ও নিজেকে স্বয়ংসম্পূর্ণ মনে করে……….(৯২ : ৫-৮)। হে আল্লাহ ! তার দানে উত্তম প্রতিদান দিন।

হাদীস নং ১৩৫৮ ইসমাঈল রহ……..আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন : প্রতিদিন সকালে দু’ জন… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৫৮ – মহান আল্লাহর বাণী : যে ব্যক্তি দান করে এবং তাকওয়া অবলম্বন করে এবং যা উত্তম তা গ্রহণ করে আমি তার জন্য সহজ পথ সুগম করে দেব। আর যে ব্যক্তি কার্পণ্য করে ও নিজেকে স্বয়ংসম্পূর্ণ মনে করে……….(৯২ : ৫-৮)। হে আল্লাহ ! তার দানে উত্তম প্রতিদান দিন।

বুখারি হাদিস নং ১৩৫৯ – সাদকা দানকারী ও কৃপণের দৃষ্টান্ত।

হাদীস নং ১৩৫৯ মূসা রহ………..আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেছেন : কৃপণ… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৫৯ – সাদকা দানকারী ও কৃপণের দৃষ্টান্ত।

বুখারি হাদিস নং ১৩৬০ – প্রত্যেক মুসলিমের সাদকা করা উত্তম। কারো নিকট সাদকা দেওয়ার মত কিছু না থাকলে সে যেন সৎকাজ করে।

হাদীস নং ১৩৬০ মুসলিম ইবনে ইবরাহীম রহ………আবু মূসা আশআরী রা. সূত্রে নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৬০ – প্রত্যেক মুসলিমের সাদকা করা উত্তম। কারো নিকট সাদকা দেওয়ার মত কিছু না থাকলে সে যেন সৎকাজ করে।

বুখারি হাদিস নং ১৩৬১ – যাকাত ও সাদকা কি পরিমান দিতে হবে এবং যে বকরী সাদকা করে।

হাদীস নং ১৩৬১ আহমদ ইবনে ইউনুস রহ……….উম্মে আতিয়্যাহ রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, নুসায়ব নাম্নী আনসারী মহিলার জন্য একটি ববকরী… Read more বুখারি হাদিস নং ১৩৬১ – যাকাত ও সাদকা কি পরিমান দিতে হবে এবং যে বকরী সাদকা করে।