জগদীশ তর্কালঙ্কার

জগদীশ তর্কালঙ্কার (১৬-/১৭শ শতাব্দী) নবদ্বীপ। আদি নিবাস-শ্ৰীহট্ট। যাদবচন্দ্ৰ বিদ্যাবাগীশ। প্ৰসিদ্ধ নৈয়ায়িক পণ্ডিত। নিজ চতুষ্পাঠীতে অধ্যাপক হিসাবে সুদূরপ্রসারী খ্যাতি ছিল। রঘুনাথ শিরোমণির তত্ত্বচিন্তামণিদীধিতির ‘ময়ুখ’ নামে টীকা রচনা করে সারা ভারতে খ্যাতিলাভ করেন। চৈতন্যদেবের আন্দোলনের ফলে শূদ্ৰও শাস্ত্রালোচনার অধিকার পাওয়ায় তিনি শাস্ত্ৰজিজ্ঞাসু শূদ্ৰকে শিষ্যত্ব দিয়ে আর্থিক দুৰ্দশা থেকে অব্যহতি পান। তার মৌলিক গ্ৰন্থ ‘শব্দশক্তি-প্রকাশিকা’ এক সময় বাঙলার প্রত্যেক চতুষ্পাঠীতে সাদরে অধীত হত। রচিত অন্যান্য গ্রন্থের মধ্যে ‘তর্কামৃত ও রহস্যপ্ৰকাশ’ নামে কাব্যপ্রকাশের একখানি টীকা পাওয়া যায়। ১৬১০ খ্রী. নবদ্বীপের প্রধান নৈয়ায়িক ছিলেন। অধ্যাপক জীবনের সর্বোচ্চ মর্যাদা ‘জগদগুরু’ পদ তিনি লাভ করেছিলেন। তার দুই পুত্র রঘুনাথ ও রুদ্ৰেশ্বর উভয়েই পণ্ডিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *