Bangla Jokes - বাংলা জোকস

বাংলা কৌতুক ও হাসির গল্প

সূচীপত্র

তিন ইঞ্চি

ওওওহ্‌ এবং আআআহ্‌ -এর মধ্যে পার্থক্য কী? -- শুধুমাত্র তিন ইঞ্চি।

কী খেলে সেক্স বাড়ে

এক পশ্চিমা বাপ তার ছেলেকে শিক্ষা দিতেছে কী কী খেলে লিঙ্গ বেশি শক্ত হবে, এবং অনেকক্ষণ সেক্স করা যাবে। পাশের রুম থেকে ছেলের মা চিল্লাইয়া বলল, তাহলে ছোটবেলা তুমি নিজে কেন ওসব খাবার খাও...

ওই জিনিসটা

এক বন্ধুর অনেক কষ্ট। এত বয়স হয়ে গেল, তার এখনও একটা গার্লফ্রেন্ড জুটল না। আরেক বন্ধু তার জন্য গার্লফ্রেন্ড খুঁজে দেয়ার কাজে সাহায্য করতে আসল। --আচ্ছা দোস্ত বল, মেয়ের ভেতরে কোন জিনিসটা সবচেয়ে বেশী চাস? - আমার 'ওই...

ছেলেদের পর্ন দেখা

দেবী দুর্গার মত ছেলেদের দুইটির বেশি হাত নেই। তবুও তারা কখন একই সময়ে একাধিক কাজ করতে পারে? -- পর্ন দেখার সময়। এক হাত দিয়ে মাউস নাড়ায়, আরেক হাত দিয়ে 'হাত মারে', এক চোখ দিয়ে পর্ন দেখে তো আরেক চোখ থাকে দরজার দিকে, আর দুইটি কানই সজাগ থাকে--কেউ আসল...

ডার্টি ওয়ার্ড

শিক্ষক : আচ্ছা, ডার্টি ওয়ার্ড দিয়ে একটি বাক্যরচনা কর তো। ছাত্র : ঘুম থেকে উঠতে দেরি হওয়াতে সময়মতো স্কুলে আসার পথে আমাকে দৌড়াতে হয়েছিল। শিক্ষক : বাক্যটিতে তো ডার্টি ওয়ার্ড একটিও নেই। ছাত্র : ইয়ে মানে স্যার, দৌড়ানোর সময় অনেকগুলো পাদ...

ধুর শালা

দোস্ত, মাইয়টার উপর এমন ক্রাশ খাইছি যে মাথা থেকে তারে দূর করতে পারছি না। -- আয় দেখি দূর কইরা দিতে পারি কিনা... মনে করে তুই বাড়িতে একা, আর মেয়েটা তখন তোর বাড়িতে গেলো। হুম ভালোই লাগছে ভাবতে। -- তুই রুমে বসা আর সে তোর রুমে ঢুকে গেলো। আইচ্ছা... -- সে তোর সামনে গিয়ে তার...

দুইজনেই মারা পড়ব

খুব অসুস্থ তিন বন্ধু ডাক্তারের কাছে গেল। তাদের একজন অ্যালকোহলিক, আরেকজন চেইন স্মোকার, অন্যজন সমকামী। ডাক্তার তাদের চেকআপ করে শেষ বললেন যে, যদি নিজেদের বদভ্যাস ত্যাগ করতে না পারেন তাহলে নির্ঘাত মারা পড়বেন। ডাক্তারের চেম্বার থেকে তিনজন বেরিয়ে এলো। যেতে যেতে পথে একটা...

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া চট্টগ্রাম বিষয়ক একটি গল্প

চট্টগ্রামের এক লোক বৃষ্টির পানির মধ্যে ড্রেনে পড়ে মারা গেলেন। তিনি স্বর্গে গিয়ে দেখলেন বিশাল এক দেয়াল। সেই দেয়ালখানা ঘড়িতে পরিপূর্ণ। তা দেখে মৃত লোকটি স্বর্গের দূতকে জিজ্ঞাসা করলেন, এখানে এতগুলো ঘড়ি কেন? স্বর্গের দূত: এগুলো হল মিথ্যা ঘড়ি। প্রত্যেক মানুষের জন্য একটি...

বিলিতি ও দেশী

বিলিতি ও দেশী কবি দ্বিজেন্দ্রলাল রায় একদিন রায়পুরে এক দরবারে অদ্ভুত পোশাক পরে হাজির হলেন। কী রকম? ধুতি-চাদর-লালকোট--বিলিতি টুপি! উপস্থিত সকলেই তাঁর এই বেশ দেখে অবাক! কমিশনার সাহেব হেসে বললেন, আপনি পাগল নাকি মশাই! না হলে এরকম পোশাক পরে কেউ আসে?’ দ্বিজেন্দ্রলাল রাগ...

ইটের বদলে পাথর

ইটের বদলে পাথর কবি দ্বিজেন্দ্ৰলাল রায় একদিন গল্প করছিলেন এক ইংরেজের সঙ্গে। কথায় কথায় সেই ইংরেজ ব্যক্তিটি বললেন, ‘হিন্দু ধর্মটা মিথ্যা, কারণ তাহারা পৌত্তলিক।’ নিজ ধর্ম সম্পর্কে ইংরেজের মুখে এহেন মন্তব্য শুনে দ্বিজেন্দ্রলালের মাথা গরম হয়ে গেল। তিনি পিঠোপিঠি বললেন,...

টাইটেল

টাইটেল কবি-নাট্যকার দ্বিজেন্দ্রলাল রায় অনেকের কাছে ডি.এল রায় নামে পরিচিত। একদিন সকালে তিনি নিজের ঘরে বসে একটি নাটক রচনা করছেন। এমন সময় এক স্বল্প পরিচিত ব্যক্তি তার সঙ্গে দেখা করতে এলেন। লোকটিকে দেখে কলম থামিয়ে চশমা হাতে দ্বিজেন্দ্রলাল বললেন, ‘কী ব্যাপার বলুন?’ লোকটি...

রসের সাগর

রসের সাগর রবীন্দ্ৰনাথ ইন্দিরা দেবীকে বিশেষ স্নেহ করতেন। ইন্দিরা দেবীও ভক্তি করতেন গুরুদেবকে। ইন্দিরা দেবী প্ৰতিদিন লরেটো কলেজে পড়তে যেতেন। তিনি যেতেন গাড়ি করে। যাবার সময় তিনি প্রতিদিন দেখতেন, বড় রাস্তার মুখে একজন সুসজ্জিত যুবক দাঁড়িয়ে। বাড়ির বড়দের নজরে এল ব্যাপারটা।...

চির কুমার

চির কুমার রবীন্দ্ৰনাথ একবার দক্ষিণাত্যে যাচ্ছিলেন। ট্রেন যাত্রার সময় বড় বড় স্টেশনে ট্রেন থামা মাত্রই ভক্তের দল কবিকে মালা পরিয়ে যাচ্ছিলেন। কবি তখন তার সঙ্গী অ্যভুজকে বললেন, ‘আমি বড় ক্লান্ত, তুমি ওদের বুঝিয়ে বল। ওদের সঙ্গে কথা বল।’ তো। তাই মেনে নিলেন অ্যাভুজ। ভোর...

খালি ওষুধ খায়

খালি ওষুধ খায় শান্তিনিকেতনে রবীন্দ্ৰনাথ সবার দিকে সমান নজর রাখতেন। কেউ অসুস্থ হলে কবি ঠিক বুঝতে পারতেন। একদিন শৈলজারঞ্জনকে তিনি বলেন, ‘কী ব্যাপার, গলাটা ধরা ধরা লাগছে, শরীর ভাল নেই নিশ্চই।’ শৈলজারঞ্জন স্বীকার করে বলেন, ‘হ্যাঁ গুরুদেব, শরীরটা ভাল যাচ্ছে না।’...

ভদ্রলোক

ভদ্রলোক রবীন্দ্ৰনাথ জোড়াসাঁকোয় এসেছেন শুনে তার সঙ্গে দেখা করতে এলেন হেমন্তবালা দেবী। কিন্তু যখন হেমন্তবালা এলেন, কবি তখন ঘরে ছিলেন না। কিন্তু এসেছেন যখন দেখা করেই যাবেন---এই সিদ্ধান্ত নিয়ে হেমন্তবালা দেবী কবির ঘরে বসে অপেক্ষা করতে লাগলেন। কিছুক্ষণ চুপ বসে থাকার পর...

কবির দণ্ড

কবির দণ্ড বৃদ্ধ বয়সে রবীন্দ্রনাথ ভালভাবে হাঁটতে পারতেন না। তবু তিনি সারাদিন চুপকরে ঘরে বসে থাকতেও পারতেন না। একদিন তিনি আস্তে আস্তে হেঁটে কলাভবনে এলেন। সেখানে এসে তিনি চারদিকে তাকিয়ে বললেন, ‘কই? আমার দণ্ড কই?’ কবির কথা শুনে সবাই অবাক। গুরুদেবের হাঁটতে অসুবিধা হয় সবাই...

মালাবদল

মালাবদল প্রখ্যাত শিল্পী নন্দলাল বসুর কন্যা গৌরী দেবীর সঙ্গে যখন সন্তোষ ভঞ্জের বিয়ে হয় কবি তখন খুবই অসুস্থ। বিছানা থেকে নামতে পারতেন না কবি। তিনি তখন থাকতেন উদয়ণে। । গৌরী দেবী ফুল দিয়ে চমৎকার মালা গাঁথিতেন ও অলঙ্কার তৈরী করতেন। বিয়ের পর স্বামীকে নিয়ে গৌরী দেবী কবির...

নাম চুরি

নাম চুরি রবীন্দ্ৰনাথ একবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আমন্ত্রণে ঢাকা শহরে যান এবং বিখ্যাত ঐতিহাসিক রমেশচন্দ্র মজুমদারের অতিথি হন। রমেশচন্দ্রের পুত্রের বয়স নয়-দশ। তার ভাল নাম অশোক এবং ডাক নাম রবি। বাড়িতে স্বয়ং রবীন্দ্ৰনাথ এসেছেন! তাই রমেশচন্দ্ৰ বাড়ির সকলকে জানিয়ে দেন, যে...

মুখ্য সংস্করণ

মুখ্য সংস্করণ সালটা সম্ভবত ১৯৪০। রবীন্দ্রনাথ তখন অসুস্থ অবস্থায় বিশ্রাম নিচ্ছেন জোড়াসাঁকোর বাড়িতে। সেই সময় তিনি বিছানায় শোয়া অবস্থাতেই হাতমুখ ধুতেন, চুল আচড়াতেন। এ সব কাজ করিয়ে দেবার লোক ছিল। একদিন সকালে তিনি শুয়ে বিশ্রাম নিচ্ছেন, অনিলকুমার চন্দ সেইসময় এলেন তাঁর...

এক গ্লাস রস

এক গ্লাস রস রবীন্দ্ৰনাথ একদিন শান্তিনিকেতনের উত্তরায়ণের বারান্দায় বসে আছেন। সেই সময় শান্তিনিকেতনের শিক্ষক আচার্য ক্ষিতিমোহন সেন কবির সঙ্গে দেখা করতে এলেন। দু'জনে বসে গল্প করছেন, এমন সময় কবির খাস ভূত্য বনমালী কবিকে একটা সুন্দর কঁচের গ্লাসে কিসের রস দিয়ে গেল, কবি...

Page 1 of 24912345...102030...Last »