ঋগ্বেদ ০৮।০১৭

ঋগ্বেদ ০৮।০১৭
ঋগ্বেদ সংহিতা ।। ৮ম মণ্ডল  সূক্ত ১৭
ইন্দ্র দেবতা। ইরিম্বিঠ ঋষি।

১। হে ইন্দ্র! আগমন কর, তোমার জন্য সোম অভিযুত হইয়াছে, এই সোম পান কর, আমাদের এই কুশোপরি উপবেশন কর।

২। হে ইন্দ্র! মন্ত্রদ্বারা যোজিত, কেশরবিশিষ্ট হরিদ্বয় তোমাকে আনয়ন করুক, তুমি যজ্ঞে আসিয়া আমাদের স্তোত্র শ্রবণ কর।

৩। আমরা স্তোতা, আমরা যোগ্য স্তোত্রদ্বারা তোমায় আহ্বান করিতেছি; আমরা সোমযুক্ত এবং অভিযুত সোমবিশিষ্ট, আমরা সোমপায়ীকে আহ্বান করিতেছি।

৪। হে ইন্দ্র! আমরা অভিযুত সোমযুক্ত, আমাদের অভিমুখে আগমন কর, আমাদের সুন্দর স্তুতি অবগত হও, হে শিপ্ৰযুক্ত! তুমি অন্ন ভক্ষণ কর।

৫। হে ইন্দ্র! তোমার কুক্ষিদ্বয়ে সোম সেক করিতেছি। সোম ক্রমে সমস্ত গাত্র ব্যাপ্ত করুক; মধুর সোম জিহ্বা দ্বারা গ্রহণ কর।

৬। হে ইন্দ্র! তুমি সুদাতা, এই মাধুৰ্য্যবান সোম তোমার শরীরের জন্য স্বাদু হউক, ইহা তোমার হৃদয়ের জন্য সুখজনক হউক।

৭। হে লোকপতি ইন্দ্র! স্ত্রীর ন্যায় সংবৃত এই সোম তোমার নিকট গমন করুক(১)।

৮। বিস্তীর্ণ কন্দরবিশিষ্ট, স্থূল উদরযুক্ত ও সুবাহু ইন্দ্র সোমরূপ অন্নজনিত হর্ষ উদয় হইলে শত্রুগণকে বিনাশ করেন।

৯। হে ইন্দ্র! তুমি সমস্ত জগতের স্বামী হইয়া আমাদের অগ্ৰে গমন কর; হে বৃত্রহা! তুমি শত্ৰুগণকে বধ কর।

১০। হে ইন্দ্র! যাহার দ্বারা তুমি সোমাভিষবকারীকে ধন দাও, তোমার সেই অঙ্কুশ দীর্ঘ হউক।

১১। হে ইন্দ্র! এই সোম তোমার জন্য বেদিতে আস্তীর্ণ কুশে বিশেষরূপে শোভিত হইয়াছে; এক্ষণে ঐ সোমের অভিমুখে আগমন কর। নিকটে গমন কর ও পান কর।

১২। হে শক্তিযুক্ত গোবিশিষ্ট, প্রখ্যাত পূজাবিশিষ্ট ইন্দ্র! তোমার সুখের জন্য সোম অভিযুত হইয়াছে, হে আখণ্ডল! উৎকৃষ্ট স্তুতিদ্বারা তুমি আহূত হইয়াছ।

১৩। হে শৃঙ্গ বৃষার পুত্র ইন্দ্র! (২) তোমার যে উৎকৃষ্ট রক্ষক কুণ্ডপায়ী যজ্ঞ আছে, তাহাতে ঋষিগণ মন দিয়াছিলেন। (৩)

১৪। হে বাস্তোষ্পতি! স্থূণা দৃঢ় হউক, আমরা সোম সম্পাদক, আমাদের স্কন্ধে রক্ষা সমর্থক বল হউক, ক্ষরণশীল, বহু পুৱীভেদক ইন্দ্র ঋষিদিগের মিত্র হউন।

১৫। সৰ্পের ন্যায় সংশ্রিত যাগযোগ্য, গোপ্ৰাপক ইন্দ্র, একাকী হইয়াও বহুতর শত্রুকে অভিভূত করেন। স্তোতা ভরণশীল ব্যাপ্তিকারী ইন্দ্রকে সোমপানাৰ্থ আমাদের সম্মুখে আনয়ন করিতেছে।

————
(১) স্ত্রী যেরূপ সংবৃত হইয়া স্বামীর নিকট আসিয়া তাহার সুখ বর্ধন করে, এই সোম তোমায় সেইরূপ করুক, এই বোধ হয় ঋকের মর্ম।
(২) শৃঙ্গবৃষা একজন ঋষি, ইন্দ্র তাঁহাকে পিতা বলিয়াছিলেন। সায়ণ।
(৩) যে যজ্ঞে কুন্ডভরিয়া সোম পান করা যায়, তাহার নাম কুন্ডপায়ী যজ্ঞ। সায়ণ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *