৬৯. লব কুশের সহিত যুদ্ধে শ্রীরামের পরাজয় ও মূর্চ্ছ

লব কুশের সহিত যুদ্ধে শ্রীরামের পরাজয় ও মূর্চ্ছ কুশ বলে লব তুমি মোর জ্যৈষ্ঠ ভাই। সারিয়া চলিল রাম আমা দোঁহার ঠাঁই।। একবারে দুই ভাই করিব সংগ্রাম। চল ঝাট মারি গিয়া আমরা শ্রীরাম।। কুশ হৈতে অস্ত্র-শিক্ষা লব ভাল ধরে। এড়িয়া চিকুর-বাণ দিক্ আলো করে।। লবের বাণেতে ব্যর্থ...

৬৮. শ্রীরামচন্দ্রের বিলাপ

শ্রীরামচন্দ্রের বিলাপ হরি হরি ক্ষুণ্ণ মন,                     দেখিয়া অদ্ভুত রণ, ভূমিতে বসিয়া রঘুনাথ। ভ্রাতৃ-মৃত্যু সৈন্য ধ্বংস,                     পরাভূত রঘুবংশ, শোকানলে হয় অশ্রুপাত।। দৈব যদি হয় বাম,                     সিদ্ধ নহে কোন কাম, যজ্ঞ হৈল সংহার কারণ। তখনি...

৬৭. লব ও কুশের সহিত শ্রীরামের যুদ্ধ

লব ও কুশের সহিত শ্রীরামের যুদ্ধ কটক হইল পার নদ নদী নীরে। জল শুখাইল কটকের পদভরে।। নদী শুখাইয়া মাটি হৈল গুঁড়া গুলা। গগন-মণ্ডলে লাগে কটকের ধূলা।। সমরে গেলেন রাম কমল-লোচন। ভরত লক্ষ্মণ পড়িয়াছে শত্রুঘন।। আর পড়িয়াছে ঠাট ছয় অক্ষৌহিণী। দেখিয়া উদ্বিগ্ন হইলেন রঘুমণি।। লব কুশ দুই...

৬৬. লব কুশের সহিত শ্রীরামের যুদ্ধের আয়োজন

লব কুশের সহিত শ্রীরামের যুদ্ধের আয়োজন মুনিগণ বেষ্টিত শ্রীরাম যজ্ঞস্থানে। হেনকালে সাত জন গেল সেইখানে।। সাত জনে দেখিয়া শ্রীরাম চিন্তাবান। জিজ্ঞাসেন ভরত লক্ষ্মণের কল্যাণ।। কৃতাঞ্জলি করি সাত করে নিবেদন। কি কহিব রঘুনাথ দৈবের ঘটন।। প্রমাদ পড়িল প্রভু ভয়ে নাহি কহি। সাত জন...

দূত কর্ত্তৃক শ্রীরামচন্দ্রকে যুদ্ধে শত্রুঘ্নের পতনের সংবাদ প্রদান এবং শ্রীরামচন্দ্রের আদেশে ভরত, ও লক্ষ্মণের যুদ্ধে গমন পতন

৬৫. দূত কর্ত্তৃক শ্রীরামচন্দ্রকে যুদ্ধে শত্রুঘ্নের পতনের সংবাদ প্রদান এবং শ্রীরামচন্দ্রের আদেশে ভরত, ও লক্ষ্মণের যুদ্ধে গমন পতন পাত্র মিত্র সহ রাম আছে যজ্ঞস্থানে। হেনকালে সাত জন গেল সেইখানে।। সাতজন বার্ত্তা কহে গিয়া ঊর্দ্ধশ্বাসে। দুই শিশু যুদ্ধ করে বাল্মীকির দেশে।। লব...

৬৪. লব-কুশের সহিত শত্রুঘ্নের যুদ্ধ ও পতন

লব-কুশের সহিত শত্রুঘ্নের যুদ্ধ ও পতন শ্রীরাম বলেন ঘোড়া আন শত্রুঘন। যজ্ঞ সাঙ্গ হৈল পূর্ণা দিব ত এখন।। সৌমিত্রির আগে দূত কহে বারে বার। মহারাজ ঘোড়া বন্দী হইল তোমার।। শুনিয়া সৌমিত্রি বীর করেন বিষাদ। বিধির নির্ব্বন্ধ কিবা পড়িল প্রমাদ।। বিষম দক্ষিণ দিক বড়ই সঙ্কট। কোন্ বীর...

৬৩. লব-কুশ কর্ত্তৃক যজ্ঞের অশ্ব বন্ধন

লব-কুশ কর্ত্তৃক যজ্ঞের অশ্ব বন্ধন ত্রৈলোক্য-বিজয় যজ্ঞ বড় পরিপাটী। আতপ-তণ্ডুলে হোম করে কোটি কোটি।। লক্ষ লক্ষ শুভ্র বস্ত্র ব্রাহ্মণের হাতে। ইন্দ্র যম বরুণ যজ্ঞের চারিভিতে।। প্রায় যজ্ঞ সমাপন হয় যেইক্ষণে। দৈবের নির্ব্বন্ধ, ঘোড়া গেল সে দক্ষিণে।। তুরঙ্গ পবনবেগে করিল প্রয়াণ।...

৬২. যজ্ঞাশ্ব রক্ষার্থ শত্রুঘ্নের যাত্রা ও পূর্ব্ব-উত্তর-পশ্চিম দিগ্বীজয়

যজ্ঞাশ্ব রক্ষার্থ শত্রুঘ্নের যাত্রা ও পূর্ব্ব-উত্তর-পশ্চিম দিগ্বীজয় তুরঙ্গ-নগর হৈতে আইল তুরঙ্গ। তুরঙ্গ সোয়ার তার কত শত সঙ্গ।। শ্যামবর্ণ অশ্ব শ্বেতবর্ণ চারি খুর। নানা অলঙ্কার শোভে সুহার কেয়ূর।। লেজ শোভা করে যেন ধবল চামর। কপালে চামর তার অতি শোভাকর।। সর্ব্ব গায় খামি খামি...

৬১. শ্রীরামের অশ্বমেধ যজ্ঞারম্ভ

শ্রীরামের অশ্বমেধ যজ্ঞারম্ভ রাম বলেন অশ্বমেধ করিলাম সার। অশ্বমেধ-যজ্ঞ সম ফল নাহি আর।। এত যদি কহিলেন কমল-লোচন। শুনিয়া হর্ষিত হৈল ভরত লক্ষ্মণ।। রাম যজ্ঞ করিবেন ব্রহ্মা হরষিত। ডাক দিয়া বিশ্বকর্ম্মে আনিলা ত্বরিত।। ব্রহ্মা বলে বিশ্বকর্ম্মা কর সম্বিধান। শ্রীরামের যজ্ঞস্থান...

৬০. ইলা রাজার প্রতি মহেশের অভিশাপ

ইলা রাজার প্রতি মহেশের অভিশাপ প্রজাপতি নৃপতির পুত্র গুণধর। ইলা নাম ধরে সেই রাজ্যের ঈশ্বর।। সর্ব্বগুণ ধরিয়া সে প্রজাগণে পালে। সর্ব্বলোকে পূজে তাঁরে পৃথিবী-মণ্ডলে।। সুদিন প্রবেশে যবে আইল মধুমাস। মৃগ মারিবারে গেল পর্ব্বত কৈলাস।। কৈলাসের প্রান্তভাগে বন মনোহর। পার্ব্বতী...