বঙ্গলক্ষ্মী

তোমার মাঠের মাঝে, তব নদীতীরে, তব আম্রবনে‐ঘেরা সহস্র কুটিরে, দোহনমুখর গোষ্ঠে, ছায়াবটমূলে, গঙ্গার পাষাণঘাটে দ্বাদশ‐দেউলে, হে নিত্যকল্যাণী লক্ষ্ণী, হে বঙ্গজননী,… Read more বঙ্গলক্ষ্মী

বর্ষশেষ

১৩০৫ সালে ৩০শে চৈত্র ঝড়ের দিনে রচিত ঈশানের পুঞ্জমেঘ অন্ধবেগে ধেয়ে চলে আসে           বাধাবন্ধহারা গ্রামান্তরে বেণুকুঞ্জে নীলাঞ্জনছায়া সঞ্চারিয়া          … Read more বর্ষশেষ

বর্ষামঙ্গল

ওই আসে ওই    অতি ভৈরব   হরষে জলসিঞ্চিত ক্ষিতিসৌরভ‐রভসে    ঘনগৌরবে নবযৌবনা বরষা       শ্যামগম্ভীর‐সরসা। গুরুগর্জনে নীল অরণ্য শিহরে, উতলা কলাপী… Read more বর্ষামঙ্গল

বলাকা (সন্ধ্যারাগে-ঝিলিমিলি ঝিলমের স্রোতখানি বাঁকা)

সন্ধ্যারাগে-ঝিলিমিলি ঝিলমের স্রোতখানি বাঁকা আঁধারে মলিন হল, যেন খাপে ঢাকা বাঁকা তলোয়ার! দিনের ভাঁটার শেষে রাত্রির জোয়ার এল তার ভেসে-আসা… Read more বলাকা (সন্ধ্যারাগে-ঝিলিমিলি ঝিলমের স্রোতখানি বাঁকা)

বসন্ত

অযুত বৎসর আগে হে বসন্ত, প্রথম ফাল্গুনে               মত্ত কুতূহলী, প্রথম যেদিন খুলি নন্দনের দক্ষিণদুয়ার               মর্তে এলে চলি, অকস্মাৎ… Read more বসন্ত

বাঁশি

                        কিনু গোয়ালার গলি।                           দোতলা বাড়ির                  লোহার-গরাদে-দেওয়া একতলা ঘর                             পথের ধারেই।                লোনাধরা দেয়ালেতে মাঝে মাঝে ধসে গেছে বালি,                      মাঝে মাঝে স্যাঁতাপড়া দাগ।                মার্কিন থানের মার্কা একখানা ছবি                          সিদ্ধিদাতা গণেশের                                    দরজার ‘পরে আঁটা।                      আমি ছাড়া ঘরে থাকে আর একটি জীব                                 এক ভাড়াতেই,                                        সেটা টিকটিকি।                                তফাত আমার সঙ্গে এই শুধু,                                             নেই তার অন্নের অভাব॥                      বেতন পঁচিশ টাকা,                            সদাগরি আপিসের কনিষ্ঠ কেরানি।         খেতে পাই দত্তদের বাড়ি                ছেলেকে পড়িয়ে।         শেয়ালদা ইস্টিশনে যাই,            সন্ধ্যেটা কাটিয়ে আসি,… Read more বাঁশি