অক্ষমা

যেখানে এসেছি আমি , আমি সেথাকার , দরিদ্র সন্তান আমি দীন ধরণীর । জন্মাবধি যা পেয়েছি সুখদুঃখভার বহু ভাগ্য বলে… Read more অক্ষমা

অচল স্মৃতি

আমার হৃদয়ভূমি-মাঝখানে জাগিয়া রয়েছে নিতি অচল ধবল শৈল-সমান একটি অচল স্মৃতি । প্রতিদিন ঘিরি ঘিরি সে নীরব হিমগিরি আমার দিবস… Read more অচল স্মৃতি

অনাদৃত

তখন তরুণ রবি প্রভাতকালে আনিছে উষার পূজা সোনার থালে । সীমাহীন নীল জল করিতেছে থলথল্‌ , রাঙা রেখা জ্বলজ্বল্‌ কিরণমালে… Read more অনাদৃত

আত্মসমর্পণ

তোমার আনন্দগানে আমি দিব সুর যাহা জানি দু-একটি প্রীতিসুমধুর অন্তরের ছন্দোগাথা ; দুঃখের ক্রন্দনে বাজিবে আমার কণ্ঠ বিষাদবিধুর তোমার কণ্ঠের… Read more আত্মসমর্পণ

খেলা

হোক খেলা , এ খেলায় যোগ দিতে হবে আনন্দকল্লোলাকুল নিখিলের সনে । সব ছেড়ে মৌনী হয়ে কোথা বসে রবে আপনার… Read more খেলা

গতি

জানি আমি সুখে দুঃখে হাসি ও ক্রন্দনে পরিপূর্ণ এ জীবন , কঠোর বন্ধনে ক্ষতচিহ্ন পড়ে যায় গ্রনিথতে গ্রনিথতে , জানি… Read more গতি

ঝুলন

আমি পরানের সাথে খেলিব আজিকে মরণখেলা নিশীথবেলা । সঘন বরষা , গগন আঁধার , হেরো বারিধারে কাঁদে চারি ধার ,… Read more ঝুলন

তোমরা ও আমরা

তোমরা হাসিয়া বহিয়া চলিয়া যাও কুলুকুলুকল নদীর স্রোতের মতো। আমরা তীরেতে দাঁড়ায়ে চাহিয়া থাকি, মরমে গুমরি মরিছে কামনা কত। আপনা-আপনি… Read more তোমরা ও আমরা

দরিদ্রা

দরিদ্রা বলিয়া তোরে বেশি ভালোবাসি হে ধরিত্রী , স্নেহ তোর বেশি ভালো লাগে— বেদনাকাতর মুখে সকরুণ হাসি , দেখে মোর… Read more দরিদ্রা

দুই পাখি

খাঁচার পাখি ছিল সোনার খাঁচাটিতে বনের পাখি ছিল বনে । একদা কী করিয়া মিলন হল দোঁহে , কী ছিল বিধাতার… Read more দুই পাখি

দুর্বোধ

তুমি মোরে পার না বুঝিতে ? প্রশান্ত বিষাদভরে দুটি আঁখি প্রশ্ন ক’রে অর্থ মোর চাহিছে খুঁজিতে , চন্দ্রমা যেমন ভাবে… Read more দুর্বোধ

দেউল

রচিয়াছিনু দেউল একখানি অনেক দিনে অনেক দুখ মানি । রাখি নি তার জানালা দ্বার , সকল দিক অন্ধকার , ভূধর… Read more দেউল

নদীপথে

গগন ঢাকা ঘন মেঘে , পবন বহে খর বেগে । অশনি ঝনঝন ধ্বনিছে ঘন ঘন , নদীতে ঢেউ উঠে জেগে… Read more নদীপথে

নিদ্রিতা

রাজার ছেলে ফিরেছি দেশে দেশে সাত সমুদ্র তেরো নদীর পার। যেখানে যত মধুর মুখ আছে বাকি তো কিছু রাখি নি… Read more নিদ্রিতা

পরশপাথর

খ্যাপা খুঁজে খুঁজে ফিরে পরশপাথর । মাথায় বৃহৎ জটা ধুলায় কাদায় কটা , মলিন ছায়ার মতো ক্ষীণ কলেবর । ওষ্ঠে… Read more পরশপাথর

পুরস্কার

সেদিন বরষা ঝরঝর ঝরে    কহিল কবির স্ত্রী `রাশি রাশি মিল করিয়াছ জড়ো, রচিতেছ বসি পুঁথি বড়ো বড়ো, মাথার উপরে বাড়ি পড়ো-পড়ো,    তার খোঁজ রাখ কি! গাঁথিছ ছন্দ দীর্ঘ হ্রস্ব— মাথা ও মুণ্ড, ছাই ও ভস্ম, মিলিবে কি তাহে হস্তী অশ্ব,    না মিলে শস্যকণা। অন্ন জোটে না, কথা জোটে মেলা, নিশিদিন ধ’রে এ কি ছেলেখেলা! ভারতীরে ছাড়ি ধরো এইবেলা    লক্ষ্মীর উপাসনা। ওগো, ফেলে দাও পুঁথি ও লেখনী, যা করিতে হয় করহ এখনি। এত শিখিয়াছ এটুকু শেখ নি    কিসে কড়ি আসে দুটো!’ দেখি সে মুরতি সর্বনাশিয়া কবির পরান উঠিল ত্রাসিয়া,… Read more পুরস্কার

প্রতীক্ষা

ওরে মৃত্যু , জানি তুই আমার বক্ষের মাঝে বেঁধেছিস বাসা । যেখানে নির্জন কুঞ্জে ফুটে আছে যত মোর স্নেহ-ভালোবাসা ,… Read more প্রতীক্ষা