বঁধুয়া, হিয়া-পর আও রে

         বঁধুয়া, হিয়া‐পর আও রে!
মিঠি মিঠি হাসয়ি, মৃদু মৃদু ভাষয়ি,   হমার মুখ‐’পর চাও রে!
যুগ‐যুগ‐সম কত দিবস ভেল গত,   শ্যাম, তু আওলি না—
চন্দ‐উজর মধু‐মধুর কুঞ্জ‐’পর   মুরলি বজাওলি না!
লয়ি গলি সাথ বয়ানক হাস রে,   লয়ি গলি নয়ন‐আনন্দ!
শূন্য কুঞ্জবন, শূন্য হৃদয মন,   কঁহি তব ও মুখচন্দ!
ইথি ছিল আকুল গোপনযনজল,   কথি ছিল ও তব হাসি!
ইথি ছিল নীরব বংশীবটতট,   কথি ছিল ও তব বাঁশি!
তুঝ মুখ চাহয়ি শতযুগভর দুখ   ক্ষণে ভেল অবসান।
লেশ হাসি তুঝ দূর করল রে,   বিপুল খেদ‐অভিমান।
ধন্য ধন্য রে, ভানু গাহিছে,   প্রেমক নাহিক ওর।
হরখে পুলকিত জগত‐চরাচর   দুঁহুঁক প্রেমরস‐ভোর॥

১২৮৮ শ্রাবণ— আনুমানিক ১২৯২

One thought on “বঁধুয়া, হিয়া-পর আও রে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *