চৈত্ররজনী

আজি উন্মাদ মধুনিশি ওগো
     চৈত্রনিশীথশশী!
তুমি এ বিপুল ধরণীর পানে
     কী দেখিছ একা বসি
     চৈত্রনিথীথশশী!
কত নদীতীরে, কত মন্দিরে,
     কত বাতায়নতলে—
কত কানাকানি, মন‐জানাজানি,
     সাধাসাধি কত ছলে!
শাখাপ্রশাখার দ্বার‐জানালার
     আড়ালে আড়ালে পশি
কত সুখদুখ কত কৌতুক
     দেখিতেছ একা বসি
     চৈত্রনিশীথশশী!

মোরে দেখো চাহি কেহ কোথা নাহি—
     শূন্য ভবনছাদে
     নৈশ পবন কাঁদে।
তোমারি মতন একাকী আপনি
     চাহিয়া রয়েছি বসি
     চৈত্রনিশীথশশী!


জোড়াসাঁকো, কলিকাতা
১৯ বৈশাখ ১৩০৪

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *