অতিবাদ

আজ বসন্তে বিশ্বখাতায়         
হিসেব নেইকো পুষ্পে পাতায় , 
জগৎ যেন ঝোঁকের মাথায় 
     সকল কথাই বাড়িয়ে বলে । 
ভুলিয়ে দিয়ে সত্যি মিথ্যে , 
ঘুলিয়ে দিয়ে নিত্যানিত্যে , 
দু ধারে সব উদারচিত্তে 
     বিধিবিধান ছাড়িয়ে চলে । 
                  আমারো দ্বার মুক্ত পেয়ে 
                        সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                  আজকে আমি কোনোমতেই 
                       বলব নাকো সত্য কথা । 
  
প্রিয়ার পুণ্যে হলেম রে আজ 
একটা রাতের রাজ্যাধিরাজ , 
ভাণ্ডারে আজ করছে বিরাজ 
     সকল প্রকার অজস্রত্ব । 
কেন রাখব কথার ওজন ? 
কৃপণতায় কোন্‌ প্রয়োজন ? 
ছুটুক বাণী যোজন যোজন 
     উড়িয়ে দিয়ে ষত্ব ণত্ব । 
                  চিত্তদুয়ার মুক্ত ক'রে 
                        সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                 আজকে আমি কোনোমতেই 
                        বলব নাকো সত্য কথা । 
  
হে প্রেয়সী স্বর্গদূতী , 
আমার যত কাব্যপুঁথি 
তোমার পায়ে পড়ে স্তুতি , 
          তোমারি নাম বেড়ায় রটি ; 
থাকো হৃদয় - পদ্মটিতে 
এক দেবতা আমার চিতে— 
চাই নে তোমায় খবর দিতে 
          আরো আছেন তিরিশ কোটি । 
                 চিত্তদুয়ার মুক্ত ক'রে 
                      সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                 আজকে আমি কোনোমতেই 
                       বলব নাকো সত্য কথা । 
  
ত্রিভুবনে সবার বাড়া 
একলা তুমি সুধার ধারা , 
উষার ভালে একটি তারা , 
     এ জীবনে একটি আলো— 
সন্ধ্যাতারা ছিলেন কে কে 
সে - সব কথা যাব ঢেকে , 
সময় বুঝে মানুষ দেখে 
     তুচ্ছ কথা ভোলাই ভালো । 
                চিত্তদুয়ার মুক্ত রেখে 
                      সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                আজকে আমি কোনোমতেই 
                    বলব নাকো সত্য কথা । 
  
সত্য থাকুন ধরিত্রীতে 
শুষ্ক রুক্ষ ঋষির চিতে , 
জ্যামিতি আর বীজগণিতে , 
     কারো ইথে আপত্তি নেই—               
কিন্তু আমার প্রিয়ার কানে       
এবং আমার কবির গানে 
পঞ্চশরের পুষ্পবাণে 
     মিথ্যে থাকুন রাত্রিদিনেই । 
                চিত্তদুয়ার মুক্ত রেখে 
                     সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                আজকে আমি কোনোমতেই 
                    বলব নাকো সত্য কথা । 
  
ওগো সত্য বেঁটেখাটো , 
বীণার তন্ত্রী যতই ছাঁটো , 
কণ্ঠ আমার যতই আঁটো , 
     বলব তবু উচ্চ সুরে— 
আমার প্রিয়ার মুগ্ধ দৃষ্টি 
করছে ভুবন নূতন সৃষ্টি , 
মুচকি হাসির সুধার বৃষ্টি 
     চলছে আজি জগৎ জুড়ে । 
                 চিত্তদুয়ার মুক্ত রেখে 
                      সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                 আজকে আমি কোনোমতেই 
                     বলব নাকো সত্য কথা । 
  
যদি বল ‘ আর বছরে 
এই কথাটাই এমনি করে 
বলেছিলি , কিন্তু ওরে 
     শুনেছিলেন আরেক জনে'— 
জেনো তবে মূঢ়মত্ত , 
আর বসন্তে সেটাই সত্য , 
এবারো সেই প্রাচীন তত্ত্ব 
ফুটল নূতন চোখের কোণে । 
                  চিত্তদুয়ার মুক্ত রেখে     
                       সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                  আজকে আমি কোনোমতেই 
                       বলব নাকো সত্য কথা । 
  
আজ বসন্তে বকুল ফুলে 
যে গান বায়ু বেড়ায় বুলে 
কাল সকালে যাবে ভুলে— 
      কোথায় বাতাস, কোথায় সে ফুল ! 
হে সুন্দরী , তেমনি কবে 
এ - সব কথা ভুলব যবে 
মনে রেখো আমায় তবে— 
     ক্ষমা কোরো আমার সে ভুল । 
                  চিত্তদুয়ার মুক্ত রেখে 
                       সাধুবুদ্ধি বহির্গতা , 
                  আজকে আমি কোনোমতেই 
                       বলব নাকো সত্য কথা ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *