অথচ নিজেই আমি

একদিন সন্ধ্যেবেলা ফ্ল্যাটে ফিরে দেখি থমকে-দাঁড়ানো অন্ধকার বারান্দায় দাঁড়ের সবুজ টিয়ে পাখিটার ঘাড় কী নিখুঁত মটকে পালিয়ে যাচ্ছে একজন লোক,… Read more অথচ নিজেই আমি

একটি কাব্যগ্রন্থের প্রকাশনা উৎসব

আজ ফুরফুরে হাওয়ার বিকেলে সদ্য প্রেস থেকে বেরিয়ে-আসা আমার একটি কাব্যগ্রন্থের প্রকাশনা উৎসব। কোথায়? জায়গাটার নাম অকথিত থাক, যদিও ভূতলবাসী… Read more একটি কাব্যগ্রন্থের প্রকাশনা উৎসব

এখনো নিজেকে

এখন যেখানে আছি, কস্মিনকালেও এখানে আসতে চাইনি। একটা ঘোরের মধ্যে এখানে আমার আসা। ভাবি, কোনো দিন মনের মতো একটা জায়গায়… Read more এখনো নিজেকে

কখনো কখনো

কখনো কখনো সত্য ঘটনা গল্পের, বলা যায়, চেয়েও অনেক বেশি আশ্চর্যজনক মনে হয়। এই তো ইঞ্জিন এসে চকিতে নিছক উন্মাদের… Read more কখনো কখনো

কতকাল পরে

কতকাল পরে কণ্ঠে তোমার মেয়ে বইয়ে দিয়েছ চকিতে ঝরনাধারা, যেন শীতার্ত প্রহরে পেয়েছে ফিরে প্রাণের শিহর মৃত পুষ্পের চারা। কী… Read more কতকাল পরে

কারো একলার নয়

অকস্মাৎ লেখার টিবিল থেকে যদি আমাকে উপড়ে নেয়, ঘর গেরস্থালি, প্রেমিকার একরাশ চুলের সৌরভ, সন্তানের চুমো জনপথ, কবিসভা থেকে ঝোড়ো… Read more কারো একলার নয়

কোমল গান্ধার

স্ফটিক সকালবেলা সে কী জন্ম কান্না দশদিক জাগানো আমার এবং কৈশোরে কোনো এক দ্বিপ্রহরে আমার নেহার বোনকে হারিয়ে বুকফাটা চিৎকারে… Read more কোমল গান্ধার

গুন খুন

এখনো আমার নামে কোনো গেরেপ্‌তারী পরোয়ানা নেই, আমি অপরাধী তার কোনো সাক্ষী-সাবুদ কোথাও কখনো পাবে না খুঁজে কেউ। তবু কেন… Read more গুন খুন

ঘরের মাঝখানে

এরকম চমকে থমকে দাঁড়ালাম যেমন নাবিক খুব একলা দাঁড়িয়ে মধ্যরাতে ডেকে থেকে স্তিমিত জ্যোৎস্নায় দেখেফেলে কোনো জলকন্যার আশ্চর্য উদ্ভাসন। তরঙ্গের… Read more ঘরের মাঝখানে

ছিলেন এক কবি

এই শহরের বাসিন্দা ছিলেন এক কবি, দিলখোলা, আড্ডাবাজ, কথাবার্তায় তুখোড়, দীর্ঘকায়। মনে হতো, উঠে দাঁড়ালেই তাঁর একরাশ লম্বা চুল চকিতে… Read more ছিলেন এক কবি

বাড়িটা

বাড়িটা গভীর রাতে দেখেছিল বৃষ্টিপাত। ওর সারা গায়ে বর্ষার তুমুল ছাঁট, খুব হিসহিসে হাওয়া ক্রমাগত ক্ষ্যাপাটে ছোবল মারে। মাঠের ভেতরে… Read more বাড়িটা

বুকের অসুখ

তিন-চার মাস ধরে সমগ্র সত্তায় জ্বরোভাব। মুখ তেতো সারাক্ষণ, খুক খুক কাশি। ফুসফুস থেকে অবিরাম মিলকভিটা মাখনের মতো কফ পড়ে,… Read more বুকের অসুখ