০৭২. সূরা জ্বিন

072.001

বলুনঃ আমার প্রতি ওহী নাযিল করা হয়েছে যে, জিনদের একটি দল কোরআন শ্রবণ করেছে, অতঃপর তারা বলেছেঃ আমরা বিস্ময়কর কোরআন শ্রবণ করেছি; Say (O Muhammad SAW): ”It has been revealed to me that a group (from three to ten in number) of jinns listened (to this Qur’ân). They said:...

072.002

যা সৎপথ প্রদর্শন করে। ফলে আমরা তাতে বিশ্বাস স্থাপন করেছি। আমরা কখনও আমাদের পালনকর্তার সাথে কাউকে শরীক করব না। ’It guides to the Right Path, and we have believed therein, and we shall never join (in worship) anything with our Lord (Allâh). يَهْدِي إِلَى الرُّشْدِ...

072.003

এবং আরও বিশ্বাস করি যে, আমাদের পালনকর্তার মহান মর্যাদা সবার উর্ধ্বে। তিনি কোন পত্নী গ্রহণ করেননি এবং তাঁর কোন সন্তান নেই। ’And exalted be the Majesty of our Lord, He has taken neither a wife, nor a son (or offspring or children). وَأَنَّهُ تَعَالَى جَدُّ رَبِّنَا...

072.004

আমাদের মধ্যে নির্বোধেরা আল্লাহ তা’আলা সম্পর্কে বাড়াবাড়ির কথাবার্তা বলত। ’And that the foolish among us [i.e. Iblîs (Satan) or the polytheists amongst the jinns] used to utter against Allâh that which was wrong and not right. وَأَنَّهُ كَانَ يَقُولُ سَفِيهُنَا عَلَى...

072.005

অথচ আমরা মনে করতাম, মানুষ ও জিন কখনও আল্লাহ তা’আলা সম্পর্কে মিথ্যা বলতে পারে না। ’And verily, we thought that men and jinns would not utter a lie against Allâh. وَأَنَّا ظَنَنَّا أَن لَّن تَقُولَ الْإِنسُ وَالْجِنُّ عَلَى اللَّهِ كَذِبًا Waanna thananna an lan taqoola...

072.006

অনেক মানুষ অনেক জিনের আশ্রয় নিত, ফলে তারা জিনদের আত্নম্ভরিতা বাড়িয়ে দিত। ’And verily, there were men among mankind who took shelter with the masculine among the jinns, but they (jinns) increased them (mankind) in sin and disbelief. وَأَنَّهُ كَانَ رِجَالٌ مِّنَ...

072.007

তারা ধারণা করত, যেমন তোমরা মানবেরা ধারণা কর যে, মৃত্যুর পর আল্লাহ তা’আলা কখনও কাউকে পুনরুত্থিত করবেন না। ’And they thought as you thought, that Allâh will not send any Messenger (to mankind or jinns). وَأَنَّهُمْ ظَنُّوا كَمَا ظَنَنتُمْ أَن لَّن يَبْعَثَ اللَّهُ...

072.008

আমরা আকাশ পর্যবেক্ষণ করছি, অতঃপর দেখতে পেয়েছি যে, কঠোর প্রহরী ও উল্কাপিন্ড দ্বারা আকাশ পরিপূর্ণ। ’And we have sought to reach the heaven; but found it filled with stern guards and flaming fires. وَأَنَّا لَمَسْنَا السَّمَاء فَوَجَدْنَاهَا مُلِئَتْ حَرَسًا شَدِيدًا...

072.009

আমরা আকাশের বিভিন্ন ঘাঁটিতে সংবাদ শ্রবণার্থে বসতাম। এখন কেউ সংবাদ শুনতে চাইলে সে জলন্ত উল্কাপিন্ড ওঁৎ পেতে থাকতে দেখে। ’And verily, we used to sit there in stations, to (steal) a hearing, but any who listens now will find a flaming fire watching him in ambush....

072.010

আমরা জানি না পৃথিবীবাসীদের অমঙ্গল সাধন করা অভীষ্ট, না তাদের পালনকর্তা তাদের মঙ্গল সাধন করার ইচ্ছা রাখেন। ’And we know not whether evil is intended for those on earth, or whether their Lord intends for them a Right Path. وَأَنَّا لَا نَدْرِي أَشَرٌّ أُرِيدَ بِمَن فِي...

072.011

আমাদের কেউ কেউ সৎকর্মপরায়ণ এবং কেউ কেউ এরূপ নয়। আমরা ছিলাম বিভিন্ন পথে বিভক্ত। ’There are among us some that are righteous, and some the contrary; we are groups each having a different way (religious sect, etc.). وَأَنَّا مِنَّا الصَّالِحُونَ وَمِنَّا دُونَ ذَلِكَ...

072.012

আমরা বুঝতে পেরেছি যে, আমরা পৃথিবীতে আল্লাহ তা’আলাকে পরাস্ত করতে পারব না এবং পলায়ন করেও তাকে অপারক করত পরব না। ’And we think that we cannot escape (from the punishment of) Allâh in the earth, nor can we escape (from the punishment) by flight. وَأَنَّا ظَنَنَّا أَن لَّن...

072.013

আমরা যখন সুপথের নির্দেশ শুনলাম, তখন তাতে বিশ্বাস স্থাপন করলাম। অতএব, যে তার পালনকর্তার প্রতি বিশ্বাস করে, সে লোকসান ও জোর-জবরের আশংকা করে না। ’And indeed when we heard the Guidance (this Qur’ân), we believed therein (Islâmic Monotheism), and whosoever believes in...

072.014

আমাদের কিছুসংখ্যক আজ্ঞাবহ এবং কিছুসংখ্যক অন্যায়কারী। যারা আজ্ঞাবহ হয়, তারা সৎপথ বেছে নিয়েছে। ’And of us some are Muslims (who have submitted to Allâh, after listening to this Qur’ân), and of us some are Al-Qâsitûn (disbelievers those who have deviated from the Right...

072.015

আর যারা অন্যায়কারী, তারা তো জাহান্নামের ইন্ধন। And as for the Qâsitûn (disbelievers who deviated from the Right Path), they shall be firewood for Hell, وَأَمَّا الْقَاسِطُونَ فَكَانُوا لِجَهَنَّمَ حَطَبًا Waama alqasitoona fakanoo lijahannama hataban YUSUFALI:...

072.016

আর এই প্রত্যাদেশ করা হয়েছে যে, তারা যদি সত্যপথে কায়েম থাকত, তবে আমি তাদেরকে প্রচুর পানি বর্ষণে সিক্ত করতাম। If they (non-Muslims) had believed in Allâh, and went on the Right Way (i.e. Islâm) We should surely have bestowed on them water (rain) in abundance. وَأَلَّوِ...

072.017

যাতে এ ব্যাপারে তাদেরকে পরীক্ষা করি। পক্ষান্তরে যে ব্যক্তি তার পালনকর্তার স্মরণ থেকে মুখ ফিরিয়ে নেয়, তিনি তাকে উদীয়মান আযাবে পরিচালিত করবেন। That We might try them thereby. And whosoever turns away from the Reminder of his Lord (i.e. this Qur’ân, and practice not its...

072.018

এবং এই ওহীও করা হয়েছে যে, মসজিদসমূহ আল্লাহ তা’আলাকে স্মরণ করার জন্য। অতএব, তোমরা আল্লাহ তা’আলার সাথে কাউকে ডেকো না। And the mosques are for Allâh (Alone), so invoke not anyone along with Allâh. وَأَنَّ الْمَسَاجِدَ لِلَّهِ فَلَا تَدْعُوا مَعَ اللَّهِ أَحَدًا Waanna...

072.019

আর যখন আল্লাহ তা’আলার বান্দা তাঁকে ডাকার জন্যে দন্ডায়মান হল, তখন অনেক জিন তার কাছে ভিড় জমাল। (It has been revealed to me that) When the slave of Allâh (Muhammad SAW) stood up invoking (his Lord Allâh) in prayer to Him they (the jinns) just made round him a dense crowd...

072.020

বলুনঃ আমি তো আমার পালনকর্তাকেই ডাকি এবং তাঁর সাথে কাউকে শরীক করি না। Say (O Muhammad SAW): ”I invoke only my Lord (Allâh Alone), and I associate none as partners along with Him.” قُلْ إِنَّمَا أَدْعُو رَبِّي وَلَا أُشْرِكُ بِهِ أَحَدًا Qul innama adAAoo rabbee wala...