সোনার কেল্লা (১৯৭১)

সোনার কেল্লা। প্রথম প্ৰকাশ: দেশ, শারদীয়া ১৩৭৮। গ্রন্থাকারে প্রকাশ: ডিসেম্বর ১৯৭১। আনন্দ পাবলিশার্স প্রাইভেট লিমিটেড। প্রচ্ছদ ও অলংকরণ: সত্যজিৎ রায়। ফেলুদার সপ্তকাণ্ড গ্রন্থে সংকলিত। প্রথম সংস্করণ: নভেম্বর ১৯৯৮) আনন্দ পাবলিশার্স প্ৰাইভেট লিমিটেড।

০১. সোনার কেল্লা

০১. সোনার কেল্লা

সোনার কেল্লা ফেলুদা হাতের বইটা সশব্দে বন্ধ করে টক্‌ টক্‌ করে দুটো তুড়ি মেরে বিরাট হাই তুলে বলল, জিয়োমেট্রি। আমি জিজ্ঞেস করলাম, এতক্ষণ কি তুমি জিয়োমেট্রির বই পড়ছিলে? বইটায় একটা খবরের কাগজের মলাট দেওয়া, তাই নামটা পড়তে পারিনি। এটা জানি যে, ওটা সিধুজ্যাঠার কাছ থেকে ধার করে আনা। সিধুজ্যাঠার খুব বই কেনার বাতিক, আর বইয়ের […]

০২. ফেলুদা যদিও একদিন সময় চেয়েছিল

ফেলুদা যদিও একদিন সময় চেয়েছিল ফেলুদা যদিও একদিন সময় চেয়েছিল, সুধীরবাবু চলে যাওয়ার এক ঘণ্টার মধ্যেই ও রাজস্থান যাওয়া ঠিক করে ফেললা! কথাটা আমাকে বলতে আমি বললাম, আমিও যাচ্ছি তো? ফেলুদা বলল, এক মিনিটের মধ্যে রাজস্থানের পাঁচটা কেল্লাওয়ালা শহরের নাম করতে পারলে চান্স আছে। যোধপুর, জয়পুর, চিতোর, বিকানির আর…আর…বুঁদির কেল্লা! রিস্টওয়াচের দিকে এক ঝলক তাকিয়ে […]

০৩. আগ্রা ফোর্ট স্টেশন থেকে বান্দিকুইয়ের ট্রেন

চ আমরা আধা ঘণ্টা হল আগ্রা ফোর্ট স্টেশন থেকে বান্দিকুইয়ের ট্রেনে চেপেছি। আগ্ৰায় হাতে তিন ঘণ্টা সময় ছিল। সেই ফাঁকে দশ বছর বাদে আরেকবার তাজমহলটা দেখে নিলাম, আর ফেলুদাও আমাকে তাজের জিয়োমেট্রি সম্পর্কে একটা ছোটখাটা লেকচার দিয়ে দিল। গতকাল কলকাতা ছাড়ার আগে একটা জরুরি কাজ সেরে নিয়েছিলাম।–সেটার কথা এখানে বলে রাখি। তুফান এক্সপ্রেস ছাড়বে সকাল […]

০৪. ট্রেন ঢিমে হলেও

ট্রেন ঢিমে হলেও এখানকার ট্রেন ঢিমে হলেও, বেশি যে লেট করছে না এটাই ভাগ্যি। গাড়ি বদল করার ব্যাপার যেখানে থাকে, সেখানে লেট করলে অনেক সময় ভারী মুশকিল হয়। ভরতপুর স্টেশনে এসে আমরা প্রথম ময়ূর দেখলাম। প্ল্যাটফর্মের উলটা দিকে তিনটে ময়ূর দিব্যি লাইনের উপর ঘুরে বেড়াচ্ছে। ফেলুদা বলল, কলকাতায় যেমন কাক-চড়ুই দেখিস সর্বত্র, এখানে তেমনি দেখবি […]

০৫. মিস্টার বোস ডক্টর হাজরাকে গুড ইভনিং বলে

মিস্টার বোস ডক্টর হাজরাকে গুড ইভনিং বলে মিস্টার বোস ডক্টর হাজরাকে গুড ইভনিং বলে নিজের ঘরের দিকে চলে গেলেন। ডক্টর হাজরা ছেলেটির হাত ধরে বারান্দা দিয়ে আমাদের দিকেই এগিয়ে এসে, বোধহয় হঠাৎ দুজন অচেনা বাঙালিকে দেখে কেমন যেন একটু থতমত খেয়ে গেলেন। ফেলুদা হেসে নমস্কার করে বলল, আপনিই বোধহয় ডক্টর হাজরা? হ্যাঁ–কিন্তু আপনাকে তো–? ফেলুদা […]

০৬. পরদিন সকালে উঠে

পরদিন সকালে উঠে পরদিন সকালে উঠে দাঁত-টাত মেজে য়েই ঘর থেকে বেরিয়েছি আমনি একটা চেনা গলায় শুনলাম, গুড মর্নিং  বুঝলাম জটায়ু হাজির। ফেলুদা আগেই বারান্দায় বেরিয়ে বেতের চেয়ারে বসে চায়ের অপেক্ষা করছিল। লালমোহনবাবু চোখ গোল গোল করে বললেন, ওঃ–কী থ্রিলিং জায়গা মশাই! ফুল অফ পাওয়ারফুল সাসপিশাস্‌ ক্যারেকটারস্! আপনি অক্ষত আছেন তো? ফেলুদা জিজ্ঞেস করল। কী […]

০৭. কাল মাঝরাত্তিরে ঘুম ভেঙে গিয়েছিল

কাল মাঝরাত্তিরে ঘুম ভেঙে গিয়েছিল কাল মাঝরাত্তিরে ঘুম ভেঙে গিয়েছিল একবার, তখন সময় কটা জানি না, দেখলাম ফেলুদা বেড-সাইড ল্যাম্পটা জ্বলিয়ে তার নীল খাতায় কী যেন লিখছে! ও কত রাত পর্যন্ত কাজ করেছিল জানি না। কিন্তু সকাল সাড়ে ছটায় উঠে দেখলাম, ও তার আগেই উঠে দাড়ি-টাড়ি কামিয়ে রেডি। ও বলে, মানুষের ব্রেন যখন খুব বেশি […]

০৮. যোধপুর থেকে পোকরান

যোধপুর থেকে পোকরান যোধপুর থেকে পোকরান প্রায় একশো কুড়ি মাইল রাস্তা। সেখান থেকে জয়সলমীর আবার সত্তর মাইল। সবসুদ্ধ এই দুশো মাইল যেতে আন্দাজ সাড়ে ছ সাত ঘণ্টা লাগা উচিত। অন্তত আমাদের ড্রাইভার গুরুবচন সিং তাই বলল। বেশ গোলগাল হাসিখুশি শিখ ড্রাইভারটিকে লক্ষ করছিলাম মাঝে মাঝে স্টিয়ারিং থেকে হাত দুটো সরিয়ে নিয়ে মাথার পিছনে দিয়ে শরীরটা […]

০৯. স্টেশন বলতে একটা প্ল্যাটফর্ম

স্টেশন বলতে একটা প্ল্যাটফর্ম স্টেশন বলতে একটা প্ল্যাটফর্ম, আর একটা ছোট্ট কাজ চালাবার মতো টিকিট ঘর। আসলে স্টেশন তৈরির কাজ এখনও চলছে। কবে শেষ হবে তার কোনও ঠিক নেই। আমরা টিকিট ঘরের কাছেই একটা জায়গা বেছে নিয়ে সুটকেস আর হাল্ড অল মাটিতে পেতে তার উপরে বসেছি। এখানে বসার একটা কারণ এই যে, কাছেই একটা কাঠের […]

১০. মিটার গেজের প্যাসেঞ্জার গাড়ি

মিটার গেজের প্যাসেঞ্জার গাড়ি মিটার গেজের প্যাসেঞ্জার গাড়ি। কামরাগুলো তাই খুবই ছোট। যাত্রীও বেশি নেই, তাই একটা খালি ফাস্ট ক্লাস পাওয়াতে খুব একটা অবাক লাগল না। কামরা অন্ধকার; হাতড়িয়ে সুইচ বার করে টিপে কোনও ফল হল না। লালমোহনবাবু বললেন,সভ্য দেশেই রেলের বালব লোপাট হয়ে যায়, ডাকাতের দেশে তো ওটা আশা করাই ভুল। ফেলুদা বলল, তোরা […]

১১. জয়সলমীর স্টেশনে নেমে

জয়সলমীর স্টেশনে নেমে জয়সলমীর স্টেশনে নেমে প্রথমেই যেটা করলাম, সেটা হচ্ছে একটা খাবারের দোকানে গিয়ে চা আর একটা নতুন রকমের মিষ্টি খেয়ে খিদেটাকে মিটিয়ে নিলাম। ফেলুদা বলল-মিষ্টি জিনিসটা নাকি দরকার-ওতে গুকোজ থাকে-সামনে পরিশ্রম আছে-গ্লুকোজে এনার্জি দেবে। দাঁড়িয়ে, তবে সেটা যে ভাড়ার নয়, সেটা দেখেই বোঝা যায়। টাঙ্গা এক্কা সাইকল-রিকশা ট্যাক্সি কিছু নেই। আমরা যখন ট্রেন […]

১২. ভবানন্দ এখন রাজস্থানি পুলিশের জিন্মায়

ভবানন্দ এখন রাজস্থানি পুলিশের জিন্মায় ভবানন্দ এখন রাজস্থানি পুলিশের জিন্মায়। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ–ডক্টর হেমাঙ্গ হাজরাকে খুন করার চেষ্টা, তার জিনিসপত্র নিয়ে সটকে পড়া, নিজের নাম ভাঁড়িয়ে হেমাঙ্গ হাজরার ভূমিকা গ্রহণ করা ইত্যাদি। আমরা ডাকবাংলোর বারান্দায় বসে উটের দুধ-দেওয়া কফি খাচ্ছি। মুকুল সামনের বাগানে দিব্যি ফুর্তিতে খেলে বেড়াচ্ছে, কারণ সে জানে আজই সে কলকাতা রওনা হবে। […]